আনিসুল হকের লাশ আসছে আজ, শ্রদ্ধা জানাতে অপেক্ষায় লাখো জনতা

নিজস্ব প্রতিবেদক
ঢাকা: ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের (ডিএনসিসি) মেয়র আনিসুল হকের লাশ দেশে আসছে আজ শনিবার। বেলা ১১টা ৩০ মিনিটে যুক্তরাজ্য থেকে বাংলাদেশ বিমানের ফাইট নম্বর বিজি-০০২-তে লাশ দেশে আনা হবে।

এরপর সর্বসাধারণের শ্রদ্ধা নিবেদনের জন্য তার লাশ বেলা ৩টা থেকে আর্মি স্টেডিয়ামে রাখা হবে। সেখানেই বিকেল ৪টায় আসরের নামাজের পর মরহুমের নামাজে জানাজা অনুষ্ঠিত হবে। জানাজা শেষে তাকে বনানী কবরস্থানে মায়ের কবরের পাশে দাফন করা হবে।

এ দিকে মেয়রের মৃত্যুতে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন শুক্রবার থেকে রোববার পর্যন্ত তিন দিনের শোক পালন চলছে। রোববার বন্ধ থাকবে ডিএনসিসির অফিসও।

মেয়র আনিসুল হক গত বৃহস্পতিবার বাংলাদেশ সময় রাত ১০টা ২৩ মিনিটে (লন্ডনের স্থানীয় সময় ৪টা ২৩ মিনিট) লন্ডনের ওয়েলিংটন হাসপাতালে তিনি মারা করেন। শুক্রবার আনুষ্ঠানিকতা শেষে হাসপাতাল থেকে তার লাশ বের করা হয়। বাদ জুমা লন্ডনের রিজেন্ট সেন্ট্রাল পার্ক মসজিদে অনুষ্ঠিত হয় মেয়রের প্রথম নামাজে জানাজা। সেখানে প্রবাসী বাংলাদেশীরা তার নামাজে জানাজায় শরিক হন।

ডিএনসিসির জনসংযোগ কর্মকর্তা এ এস এম মামুন জানান, আজ শনিবার বেলা ১১টা ২০ মিনিটে মেয়রের লাশ হজরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে পৌঁছানোর কথা রয়েছে। সেখানে তার ছোট ভাই সেনাপ্রধান আবু বেলাল মোহাম্মদ শফিউল হক, আত্মীয়স্বজন ও ডিএনসিসির কর্মকর্তারা লাশ গ্রহণ করবেন।

সেখান থেকে তাকে বনানীর বাসভবনে নেয়া হবে। পরে আর্মি স্টেডিয়ামে বাদ আসর নামাজে জানাজা হবে। সেখানেই বেলা ৩টা থেকে সর্বসাধারণ মেয়রকে শ্রদ্ধা জানাতে পারবেন। পরে বনানীতে তাকে দাফন করা হবে।

মেয়র আনিসুল হক স্মরণে শুক্রবার ডিএনসিসির নগর ভবনসহ ৫টি অঞ্চলে একযোগে শোক বই খোলা হয়েছে। নগরবাসী তাকে স্মরণ করে এসব বইয়ে শোকবার্তা দিচ্ছেন। এ ছাড়া মেয়রের মৃত্যুতে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন শুক্রবার থেকে রোববার পর্যন্ত তিন দিনের শোক পালন করছে। আগামীকাল রোববার বন্ধ থাকবে ডিএনসিসির অফিস।

গত ২৯ জুলাই নাতির জন্ম উপলে ব্যক্তিগত সফরে সপরিবারে যুক্তরাজ্য যান আনিসুল হক। সেখানে অসুস্থ হয়ে পড়লে ১৩ আগস্ট তাকে লন্ডনের ন্যাশনাল নিউরোসায়েন্স হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরীরীক্ষা-নিরীক্ষার পর তার মস্তিষ্কে প্রদাহজনিত রোগ ‘সেরিব্রাল ভাস্কুলাইটিস’ শনাক্ত করেন চিকিৎসকেরা।

পরে তাকে নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে (আইসিইউ) রেখে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছিল। ধীরে ধীরে অবস্থার উন্নতি ঘটলে তাকে গত ৩১ অক্টোবর আইসিইউ থেকে রিহ্যাবিলিটেশন সেন্টারে স্থানান্তর করা হয়। গত সোমবার অবস্থার অবনতি হলে তাকে রিহ্যাবিলিটেশন সেন্টার থেকে ফের আইসিইউতে স্থানান্তর করা হয়। বৃহস্পতিবার তিনি মারা যান।

মায়ের পাশেই শায়িত হবেন আনিসুল হক : মা, শাশুড়ি ও ছোট ছেলে মো: শারাফুল হকের কবরের পাশেই চিরনিদ্রায় শায়িত হবেন ডিএনসিসি মেয়র আনিসুল হক। বিষয়টি জানিয়েছেন ডিএনসিসির জনসংযোগ কর্মকর্তা এ এস এম মামুন।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।