ফেক নিউজে পুরস্কার ঘোষণা করে ফের আলোচনায় ট্রাম্প!

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
ওয়াশিংটন: নানা বিতর্কিত কমকাণ্ডে আলোচিত মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। এবার তিনি ‘ফেক নিউজ অ্যাওয়ার্ড ২০১৭’ ঘোষণা করে ফের আলোচনায়।

গত এক বছর ধরে ডোনাল্ড ট্রাম্প সম্পর্কে যেসব ‘ভিত্তিহীন’ ও ‘মিথ্যা খবর’ প্রচারিত হয়েছে, সেগুলো যেসব সাংবাদিক এবং সংবাদমাধ্যম কভার করেছে, তাদের এই পুরস্কারে ‘সম্মানিত’ করা হয়।

দাবি করা হয়, ট্রাম্পবিরোধী প্রায় ৯০ শতাংশ খবরই মিথ্যা!

দেখা গেছে, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রথম সারির প্রায় সব সংবাদমাধ্যমই এই তালিকায় রয়েছে! এমনকি এক নোবেল জয়ীও ‘সম্মানিত’ হয়েছেন এই ‘ফেক নিউজ অ্যাওয়ার্ড’-এ।

বুধবার, এই অ্যাওয়ার্ড তালিকা প্রকাশ করে ট্রাম্প প্রশাসন। রিপাবলিকান দলের অফিসিয়াল ওয়েবসাইটেও সেই তালিকা আপলোড করা হয়। আর এই অ্যাওয়ার্ড ঘোষণা হওয়ার পরপরই ওই ওয়েবসাইট ক্র্যাশ করে বলে জানা যায়।

অ্যাওয়ার্ড তালিকায় প্রথম স্থানে রয়েছেন, নোবেল বিজয়ী অর্থনীতিবিদ পল ক্রুগম্যান। ডোনাল্ড ট্রাম্প নিরঙ্কুশ জয় পাওয়ার পর নিউইয়র্ক টাইমসে এক প্রতিবেদনে ক্রুগম্যান লিখেছিলেন, ট্রাম্পের জয়ে অর্থনীতির আর উন্নতি হবে না। ট্রাম্প দাবি করেছেন, তার আমলেই ডাউ জোনস সর্বোচ্চ রেকর্ডে পৌঁছেছে।

ফেক নিউজে পুরস্কার ঘোষণা করে ফের আলোচনায় ট্রাম্প!

দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে এবিসির প্রবীণ সাংবাদিক ব্রায়ান রসের ‘ট্রাম্প-রাশিয়া যোগের ভুয়া’ খবর। যার জেরে রসকে এক মাস বেতন ছাড়াই সাময়িক বহিষ্কৃত হতে হয়।

ট্রাম্পের নির্বাচনী প্রচারে ‘রাশিয়া-যোগ’ প্রকাশ হওয়ায় ডাউ জোন্স ৩৫০ পয়েন্ট পড়ে যায়। সিএনএন, নিউজউইক, দ্য নিউ ইয়র্ক টাইমসের অনেক খবরই ভুয়া বলে দাবি করা হয় এখানে।

এদিকে, ‘ফেক নিউজ অ্যাওয়ার্ড’ ঘোষণার পর ট্রাম্প টুইটে জানান, অসত্য এবং দুর্নীতিগ্রস্ত মিডিয়া এসব খবর প্রচার করলেও অনেক ভালো সাংবাদিক রয়েছেন, তাদের আমি সম্মান করি এবং তাদের ভালো খবরের জন্য আমেরিকা গর্ববোধ করে।